হিজাব করলে কি কি উপকার হয় এবং হিজাব না করলে কি ক্ষতি হয়?

ইসলামের ধর্মীয় রীতি অনুযায়ী নারীদের পর্দা করতে হয়। নারীরা বোরকা দিয়ে সারা সরীর এবং হিজাব দিয়ে মুখমণ্ডল ডেকে থাকে। আমরা সবাই জানি ইসলামের বিধি বিধান গুলো বাস্তব সম্মত এবং বিঞ্জান সম্মত। ইসলামের বিধি বিধান গুলো যেবাবে করা হয়েছে। সব কিছুরই উপকার আছে।আজ আমরা জানবো হিজাব করলে কি কি উপকার হয় এবং হিজাব না করলে কি কি ক্ষতি হয়।

আমরা এই আরটিকেল থেকে যা যা জানবো

হিজাব করলে কি কি উপকার হয়

হিজাব নারীদের সৌন্দর্য্যের প্রতীক। হিজাব করলে নারীদের অনেক সুন্দর লাগে। হিজাব পড়লে মেয়েরা নিরাপদ থাকে। মেয়েদের নিরাপত্তা নিয়ে ইসলাম অনেক নিয়ম করেছে। কারন ইসলামে নারীদের গুরুত্ব অনেক বেশি দেওয়া হয়েছে। হিজাব করলে মেয়েদের সম্মান বজায় থাকে। হিজাব করলে রাস্তায় যে কোনো মানুষ সম্মান দিয়ে কথা বলে। হিজাব করলে সবসময় বাইরের ময়লা, ধূলো থেকেও রক্ষা পাওয়া যায়। মুসলিম মেয়েদের জন্য পর্দা করা ফরজ, না করলে গুনাহ হয়। হিজাব করলে দুষ্ট লোকের চোখ থেকে নিরাপদ থাকে। হিজাব করলে দেখতে সুন্দর এবং পরিমাজিত লাগে। তাছাড়া আরো অনেক উপকার হয়ে থাকে।

হিজাব না করলে কি ক্ষতি হয়

হিজাব না পড়ার ক্ষতি উপরের কথাগুলোর বিপরীতে!হিজাব না করলে দুষ্ট লোকের পাল্লায় পরে অনেক এক্সিডেন্ট হয়ে থাকে। হিজাব মুসলিম মেয়েদের জন্য পর্দা করা ফরজ, না করলে গুনাহ হয়।হিজাব না করলে সবসময় বাইরের ময়লা, ধূলো থেকেও রক্ষা পাওয়া যায় না। বর্তমানে করোনা মহামারিতে আক্রান্ত হওয়ার সম্ভাবনা অনেক বেশি।

Please Share This Article
আরো পড়ুনঃ   হযরত মুহাম্মাদ সা.- এর কিছু গুরত্বপূন ভবিষ্যৎ বাণী ।

2 thoughts on “হিজাব করলে কি কি উপকার হয় এবং হিজাব না করলে কি ক্ষতি হয়?”

  1. I was suggested this website by my
    cousin. I am not sure whether this post is written by him
    as no one else know such detailed about my difficulty.

    you’re incredible! Thanks!

    Reply

Leave a Comment