ওয়ার্ডপ্রেসে সফলতা পাওয়ার কিছু উপায় ও টিপস

আজকাল আমাদের মধ্য অনেকেই অনলাইন এ টাকা আয় করার কথা চিন্তা করেন। আর অনলাইনে টাকা আয় করার কথা উঠলেই সবার আগে আমাদের একটি সাইট এর কথা মনে পরে আর সেটা হলো WordPress.com.

আজ পর্যন্ত লক্ষ লক্ষ মানুষ ওয়ার্ডপ্রেসে কাজ করে সফলতা অর্জন করেছেন। ওয়ার্ডপ্রেস এ সঠিকভাবে কাজ করে আপনারা গুগল এডস কম্পানির কাছে থেকে এডসেন্স পেতে পারেন। আর একবার যদি গুগল এডসেন্স পেয়ে যান আর মাসিক আপনার সাইটে ৬-৮ হাজার ভিভিটর হয় তাহলে আপনি গুগল এডসেন্স থেকে খুব ভালো পরিমাণ অর্থ উপার্জন করতে পারবেন। আর ওয়ার্ডপ্রেসে সফলতা কিভাবে পাওয়া যায় সে বিষয়ে আজকে আমি আপনাদের সামনে কয়েকটি স্টেপ বা মূল বিষয় গুলো তুলে ধরবো।

আমরা এই আরটিকেল থেকে যা যা জানবো

ওয়ার্ডপ্রেসে সফলতা পাওয়ার উপায়

১. ইউনিক পোস্ট

আপনি যদি কোনো Blog সাইট তৈরি করেন তাহলে আপনাকে সর্বদা হাই কোয়ালিটির পোস্ট করতে হবে। এবং এমন পোস্ট করতে হবে যা কমপক্ষে ৯০% ইউনিক আর যদি পারেন তাহলে একদম ১০০% ইউনিক পোস্ট করার চেষ্টা করবেন। আর যদি কোনো নিউজ সাইট তৈরি করেন তাহলে সব সময় ১০০% সঠিক নিউজ সাইটে রাখবেন। এবং কোনো ক্ষেত্রেই নিউজ কপি করা যাবে না। কমপক্ষে ৯৫% ইউনিক পোস্ট করতে হবে৷ পোস্ট কতটুকু ইউনিক সেটা জানার জন্য অনেক ওয়েবসাইট আছে। আপনারা ইউটিউব বা গুগলে সেগুলো সার্চ করে নিতে পারেন।

২. কপি পোস্ট

অনেকেই আছেন যারা সাইটে কপি পোস্ট করেন। তাদের কে বলছি ভাই এডসেন্স এর আশা বাদ দিয়ে দিন। কেননা গুগল কখনো কপি পোস্ট কে সাপোর্ট করে না। পোস্ট সম্পূর্ণ নিজের ভাষায় লিখতে হবে। যদি চান তো গুগল, ইউটিউব ইত্যাদি যায়গা থেকে পোস্ট এর ধারণা নিতে পারেন তবে কোনো ভাবেই হুবহু সেই পোস্ট সাইটে দেওয়া যাবে না। অনেকেই আছেন যারা পোস্ট কপি করে কয়েকটা ওয়ার্ড পরিবর্তন করে পোস্ট করেন৷ তবে এরকম বিষয় ও গুগল সাপোর্ট করে না।

৩. পোস্ট এ গুগল থেকে ডাউনলোড কৃত ছবি যোগ করা

গুগল থেকে সরাসরি কোনো ছবি ডাউনলোড করে সেটা নিজের সাইটের পোস্টে দেওয়া হলো সবচেয়ে বড় বোকামি। কেননা, গুগল এই জিনিসটা কেও কপিরাইট বলে নির্ধারিত করেছে। তবে আপনি পোস্টে এমন একটা ছবি দিতে চাচ্ছেন যেটা গুগল ছাড়া কোথাও পাওয়া যাবে না। যেমনঃ ফুলের ছবি, ফলের ছবি ইত্যাদি।

সেক্ষেত্রে আপনারা চাইলে গুগল থেকে ছবি ডাউনলোড করতে পারেন। তবে ডাউনলোড করা ছবি সরাসরি পোস্ট এ দেওয়া যাবে না। ছবি টি কে হাল্কা ইডিট করতে হবে। যেমনঃ আপনি চাইলে ছবির এক কোণায় আপনার সাইট এর নাম লিখলেন।

তার পর সেটিকে পোস্ট এ দিতে পারেন। সেক্ষেত্রে গুগল কপি ধরবে না।

৪. ডোমেইন এবং হোস্টিং

সাইটে must be আপনাকে যেকোনো পেইড ডোমেইন এবং হোস্টিং যোগ করতে হবে। আর মেইন বিষয় হলো হোস্টিং ছাড়া সাইট আপনারা তৈরি করতেই পারবেন না। অনেকে ফ্রি হোস্টিং করে অনেক থার্ড পার্টি ওয়েবসাইট থেকে। তারা কখনো ওয়ার্ডপ্রেসে সফলতা পায় না।

সাইটের জন্য আপনারা ডোমেইন এবং হোস্টিং কিনবেন একটি ভরসা যোগ্য ওয়েবসাইট থেকে। ভালো ওয়েবসাইট আপনারা গুগল বা ইউটিউব এ সার্চ করলে পেয়ে যাবেন।

৫. সাইট গুগলে ইনডেক্স করা

সাইট গুগলে ইনডেক্স করা বিশেষ একটি প্রসেস। এটা না করলে এডসেন্স পাওয়া একটু কঠিন হয়ে দাঁড়ায়। সাইট গুগলে ইনডেক্স করা নিয়ে আপনারা গুগলে অনেক আর্টিকেলস পাবেন বা ইউটিউব এ টিউটোরিয়াল পেয়ে যাবেন।

৬. পোস্ট গুগলে ইনডেক্স করা

এটাও সাইট গুগলে ইনডেক্স করার মতো আরো একটি গুরুত্বপূর্ণ প্রসেস। এটা করলে আপনার পোস্ট গুগলে ভালো একটা রেংকিং এ থাকবে। এবং সার্চ করলে গুগলের ১ম পেজে থাকবে। সেক্ষেত্রে ভিজিটর বেশি পাওয়া যায়। আর ভিজিটর বাড়া মানে আপনার আয় বেড়ে যাওয়া।

৭. পোস্ট এর নিয়ম

গুগল কোনো লো কোয়ালিটির পোস্ট বা ছোট পোস্ট কে সাপোর্ট করে না। আপনার পোস্ট মাস্ট বি ৩৫০ শব্দের হতে হবে। সেক্ষেত্রে আপনার সাইটে এডসেন্স এপ্রুভ করার জন্য বেশি পোস্ট এর দরকার হবে। আর আপনি যত বেশি শব্দের পোস্ট করবেন তত বেশি আপনার পোস্ট গুগল কে ইম্প্রেস করবে। তাই বলে এটা-ওটা বা হাভি-জাভি লিখে পোস্ট করলে সেটা গুগল মেনে নিবেন না। পোস্ট এ পোস্ট সম্পর্কিত ট্যাগ, পোস্ট সম্পর্কিত টাইটেল, পোস্ট সম্পর্কিত থাম্বনাইল ব্যবহার করা আবশ্যক। এবং পোস্টে যদি বিবি কোড ব্যবহার করেন তাহলে পোস্ট দেখতে সুন্দর লাগে। এবং গুগল এটাকে সাপোর্ট করে। বিবি কোড বলতে কি বোঝায় সেটা আপনারা গুগলে সার্চ করলেই পেয়ে যাবেন।

৮. পোস্ট SEO Friendly হওয়া

পোস্ট SEO Friendly হওয়া অত্যান্ত জরুরি। SEO Friendly পোস্ট করলে আপনার সাইটে অনেক তারাতারি এডসেন্স এপ্রুভ হবে। SEO friendly পোস্ট কি জিনিস সেটা আপনারা ইউটিউব বা গুগলে পেয়ে যাবেন।

৯. সাইটের হোম পেজ ইডিট

সাইটের হোম পেজে কমপক্ষে ৪-৫ টি লিংক (হোম পেজ লিংক,নিউ পোস্ট পেজ লিংক, কন্ট্রাক্ট পেজ লিংক, পেমেন্ট পেজ লিংক ইত্যাদি) রাখা। এতে সাইট দেখতে সুন্দর লাগে।

১০. সাইট টির জন্য সুন্দর করে থিম বানানো

সাইটে জন্য সুন্দর থিম বানালে সেটা দেখে ভিজিটর রা আকর্ষিত হয়ে বার বার আপনার সাইটে আসবে। আর প্রথমেই বলেছি ভিজিটর মানেই টাকা।

এভাবে যদি আপনারা এই ১০ টি টিপস ব্যবহার করেন তাহলে আপনার জন্য ওয়ার্ডপ্রেসে সফলতা পাওয়া অনেক সহজ হয়ে যাবে।

আর ওয়ার্ডপ্রেসে সফলতা পাওয়ার জন্য আপনারা আরো অনেক ইউটিউব টিউটোরিয়াল পেয়ে যাবেন। সেগুলো দেখে নিবেন আপনার কাজ সহজ হয়ে যাবে।

Sharing Is Caring:

Leave a Comment